৫০০০ টাকার মধ্যে ভালো 4g মোবাইল বাংলাদেশ ২০২১

৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ ২০২১

৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ



তো স্মার্টফোনের দুনিয়ায় প্রতিনিয়ত নতুন নতুন স্মার্টফোনের আগমন চলছেই। এবং চলতেই থাকবে। প্রতিনিয়ত একটি ফোন এসে অন্য আরেকটি ফোনের মার্কেট কেড়ে নেয়। ৫০০০ টাকার মধ্যে ভালো মোবাইল ২০২১ বাংলাদেশ। ৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ। 

এভাবেই এ গোলকধাঁধা প্রতিনিয়ত চলতেই থাকবে। এবং নতুন নতুন ব্র্যান্ডের দামি দামি স্মার্টফোন বের হতেই থাকবে। আমরা যারা কম দামে ভালো স্মার্টফোন কেনার জন্য চেষ্টা করছি। 


তাদের জন্য আমার এই ব্লগটি বেস্ট হবে। এখানে আমি 5000 টাকার মধ্যে যত ভালো ফোন আছে, সেগুলো কে রিভিউ করব। 


৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ তুলে ধরব। রিভিউতে কারা চলে আসে সেটাও দেখার বিষয়। আমি চাইবো আপনাদের জন্য উপযুক্ত ফোনটিকে তুলে ধরতে। যাতে আপনারা উপকৃত হতে পারেন।


৫০০০ টাকার মধ্যে ভালো 4g ফোন কোনটি?


তার আগেই বলে দেই  আমি অনেক অনলাইন ঘাটাঘাটি করেছি। পরবর্তীতে Realme C2s নামক একটা ফোন পেলাম। এবং 4000 টাকা মূল্যের একটি অসাধারন স্মার্টফোন, সেটা আপনি চিন্তাও করতে পারবেন না। 


তো 5000 টাকার মধ্যে যারা ফোন কিনতে চাচ্ছেন, তাদেরকে আমি সবার আগেই সাজেস্ট করব রিয়াল মি এর এই ফোনটি কেনার জন্য। কারণ এর কোয়ালিটি, পাশাপাশি বিভিন্ন ফিচার অবাক করার মত। চলুন ব্লগ রিভিউটি শুরু করে নেয়া যাক।


বিঃদ্রঃ একটু  ভুল হয়েছে। উপরোক্ত রিয়েলমি ফোনটি এ দামে এভেইলেবেল নেই।লেখাটি এই মাত্র এডিট করে দিলাম।


এখানে বেশিরভাগ ফোন গুলো দেখবেন এক জিবি র্যাম করে। কাজেই চিন্তা করার কিছু নেই। আপনি স্বভাবতই ভালো ফোনটি কিনতে চাইবেন। খারাপ ফোন 

যেগুলোকে বুঝবেন সেগুলো অবশ্যই বাদ দিয়ে দিবেন।


১) Realme C2S (4G)৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ।

মূল্যঃ ৪০০০ টাকা মাত্র।


রিলিজ তারিখ : জানুয়ারী, ২০২০।


অপারেটিং সিস্টেম: এন্ড্রয়েড ৯.০; কালারOS ৬.১


ডিসপ্লে : ৬.১" , ৭২০x১৫৬০ পিক্সেল।


ক্যামেরা: ১৩ মিগাপিক্সেল, ১০৮০p।


র‍্যাম: ৩ জিবি।  MT6762 Helio P22


ব্যাটারি: ৪০০০ mAh লি-পলিমার


বিভিন্ন ফিচারঃ

১। Realme C2s ফোনটির বাংলাদেশ বাজার মূল্য ৪০০০ টাকা। 


২। Realme C2s স্মার্ট ফোনের ডিসপ্লে সাইজ ৬.১ ইঞ্চি। সে দিক থেকে ফোনটি যথেষ্ট ভালো। ডিসপ্লে কোয়ালিটি অসাধারণ।

৩। ডিসপ্লে সাইজ ৯১.৩ cm2। এর ৮০.৩% জায়গা জুড়ে আছে স্ক্রীন। মানে হল স্ক্রিনটা দেখতে অনেক বড়।


৪। আরো আছে আইপিএস এলসিডি ক্যাপাসিটিভ টাচস্ক্রিন। এবং ১৬M কালার ডিসপ্লে।


৫। Octa-core ২.০ GHz Cortex-A৫৩, Mediatek MT6762  প্রসেসর দ্বারা পারফর্ম করে। Helio P22 (১২ nm) প্রসেসর।


৫। ফোনটিতে আছে ৩ জিবি  র্যাম। এবং ৩২ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ। এবং এর এক্সটার্নাল স্টোরেজ ২৫৬ জিবি পর্যন্ত বাড়ানো যায়।  


৬। স্টাইলিশ ডিভাইসটিতে আছে ১৩ মেগাপিক্সেলের উন্নত মানের ব্যাকসাইড ক্যামেরা। এবং ৫ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট সাইড সেলফি ক্যামেরা।


৭। এটি ৪০০০ mAh লি আয়ন ব্যাটারি দ্বারা পরিচালিত।এতো ভালো ফোন ৪০০০ টাকার মধ্যে ভালো মোবাইল কোথায় পাওয়া যায় কিনা সন্দেহ আছে। এটির ভেরিয়েন্টে ডায়মন্ড ব্ল্যাক কালার এভেইলেবল আছে।


বিঃদ্রঃ উপরোক্ত ফোনটির তথ্যাদি ভুল প্রমণিত হয়েছে। তার জন্য আন্তরিকভাবে দুঃখিত।


Nokia 2V (4G মোবাইল)

দামঃ ৫০০০ টাকা।

Nokia 2 V বাংলাদেশ বর্তমান মূল্য মে, ২০২১। 


পড়ুনঃ

বিভিন্ন ফিচারঃ

  • Nokia 2 V এর বাংলাদেশি বর্তমান মূল্য ৫ হাজার টাকা। 
  • এই ফোনটিতে আছে ৫.৫ ইঞ্চি ডিসপ্লে। সাথে আছে ১৬M কালার ডিসপ্লে।
  •  Quad-core, ১৪০০ MHz, ARM Cortex-A53, ৬৪-বিট, 28 ন্যানোমিটার, Qualcomm Snapdragon 425 MSM8917 প্রসেসর দ্বারা এটি পারফর্ম করে। 
  • এখানে আছে ১ জিবি র্যাম। এবং এদের এক্সটার্নাল স্টোরেজ সর্বোচ্চ ১২৮ জিবি পর্যন্ত বাড়ানো সম্ভব।
  •  এটা microSDXC সাপোর্ট করে। এ স্টাইলিশ ডিভাইসটিতে ৮-megapixel ব্যাকসাইড ক্যামেরা আছে। এবং ৫ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা আছে। এবং ৪০০০ mAh এর লি-আয়ন ব্যাটারি দ্বারা স্মার্টফোনটি পরিচালিত।

রিলিজ হওয়ার তারিখ: জানুয়ারি ২০১৯ 


অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ৮.১


ডিসপ্লে: 5.5 ইঞ্চি5.5" ১২৮০ x ৭২০ পিক্সেল


ক্যামেরা: ৮ মেগাপিক্সেল ১০৮০p 


র‍্যাম: ১ গিগাবাইট কোয়ালকম স্নাপড্রাগণ ৪২৫


ব্যাটারি: ৪০০০ mAh লি-আয়ন।



৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ  সম্পুর্ণ জানুন। 



Itel A15 Plus (৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল) 

মূল্যঃ ৫০০০ টাকা।


রিলিজ হওয়ার তারিখ: মার্চ ২০২০


অপারেটিং সিস্টেম:  অ্যান্ড্রয়েড ৮.১


ডিসপ্লে : ৫ ইঞ্চি" ৪৮০x৮৫৪ পিক্সেল


ক্যামেরা: ৫ মেগাপিক্সেলের ৭২০পি


·        ম্যামRAM: ১ জিবি Mediatek MT6580।


·        ব্যাটারি: ২০৫০ mAh লি-আয়ন।


বিভিন্ন ফিচারঃ

  • Itel A16 ফোনটির বাংলাদেশ বাজার মূল্য 5000 টাকা।

  • Itel A16 Plus অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনটি ডিসপ্লে সাইজ 5 ইঞ্চি। অর্থাৎ 68.9 সেন্টিমিটার স্কোয়ার। 

  • এর 73.২ ভাগ স্ক্রিন জুড়ে আছে। এছাড়া আছে 16m কালার ডিসপ্লে পিকচার। সাথে আছে এলসিডি ক্যাপাসিটিভ টাচস্ক্রিন। 

  • Itel A16 Plus স্মার্টফোনটি quad-core 1.3 গিগাহার্টজ  Mediatek MT6580 (32ন্যানো মিটার) প্রসেসর দ্বারা পারফর্ম করে। 

  • 1 জিবি র্যাম এবং 8 জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ আছে। 

  • মাইক্রো এসডি কার্ড সাপোর্টেড। এবং এটিকে 32gb এক্সটার্নাল স্টোরেজ পর্যন্ত বর্ধিত করা যায়।

  • এ স্টাইলিশ ডিভাইসটিতে আছে 5 মেগাপিক্সেলের ব্যাকসাইড ক্যামেরা। এবং দুই মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট সাইড ক্যামেরা।
  •  এটি 2050 এম এস লি-পলিমার ব্যাটারী দ্বারা পরিচালিত। ৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ ২০২১ এরকম আরো আছে।


Blue view 1 (৫০০০ টাকার মধ্যে মোবাইল 4g)

দামঃ ৪৫০০ টাকা।


রিলিজ তারিখ : নভেম্বর,২০১৯


অপারেটিং সিস্টেমঃ  এন্ড্রয়েড  ৯.০


ডিসপ্লে: ৫.৫ ইঞ্চি, ৪৮০x৯৬০ পিক্সেল।


ক্যামেরা: ৮ মেগা পিক্সেল ১০৮০p


র‍্যাম: ২ গিগাবাইট MT6739


ব্যাটারি: ২৫০০ mAh লি-পলিমার



বিভিন্ন ফিচারঃ

১। ফোনটির রিলিজ তারিখ ২০১৯ এর নভেম্বর। এটিতে এন্ড্রয়েড ৯.০ পরিচালিত। 


২। আরো আছে ৫.৫" সাইজের ডিসপ্লে। ফোনটির ডিসপ্লে সাইজ পিক্সেল।

 

৩। ফোনটির র‍্যাম ২ জিবি। এবং রোম ৮ জিবি। ফোনটি ২৫০০ এম এ এইচ লি-পলিমার ব্যাটারি দ্বারা চালিত। এতে কোয়াড-কোর ১.৪ গিগা হার্টজ প্রসেসর আছে।

 


Itel A25 (4G মোবাইল)

দামঃ ৪৯৯০ টাকা।


পড়ুনঃ

বিভিন্ন ফিচারঃ

১। itel A25 ফোনটির ৫ ইঞ্চি এইচডি স্ক্রিন আছে। এবং এটি অনেকটা ক্লাসিকাল ও স্ট্যান্ডার্ড স্মার্টফোনের ডিজাইন। 


২।ফোনটির ব্যাকসাইড ক্যামেরা ৫ মেগাপিক্সেলের। ফোনের ব্যাক সাইট ক্যামেরাতে আছে  এলইডি ফ্ল্যাশ এবং অটোফোকাস। এবং ফ্রন্ট ক্যামেরা ২ মেগা পিক্সেলের। 


৩। ফোনটির র‍্যাম হচ্ছে ১ জিবি। এবং রুম হচ্ছে ১৬ জিবি। ৩২ জিবি পর্যন্ত মাইক্রো এইচডি কার্ড লাগানো সম্ভব।

 

৪।itel A25 ফোনটি ৩০২০ mAh ব্যাটারি দ্বারা চলে।১.৪ GHz quad-core CPU দাঁড়া পারফর্ম করে। 

ফোনটিতে কোনো ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর নেই।



LG Aristo 2 (4G মোবাইল)

মূল্যঃ ৫০০০ টাকা

       

রিলিজ তারিখঃ জানুয়ারী, ২০১৮


ওএস: এন্ড্রয়েড ৭.১.২


ডিসপ্লে: ৫.০ ইঞ্চি, ৭২০x১২৮০ পিক্সেলস


ক্যামেরা: ১৩ মেগাপিক্সেল, ১০৮০p


র‍্যাম: ২ গিগাবাইট, স্ন্যাপড্রাগন ৪২৫


ব্যাটারি: ২৪১০ mAh লি-আয়ন


বিভিন্ন ফিচারঃ


১। তো ফোনটিতে আছে আইপিএস এলসিডি ক্যাপাচিটিভ টাচস্ক্রীন। ১৬M কালার ডিসপ্লে।


২। ফোনটির ডিসপ্লে সাইজ হচ্ছে ৫ ইঞ্চি। অর্থাৎ ৬৮.৯ cm2।  যার ৬৬ দশমিক ২ শতাংশ জায়গা জুড়ে অবস্থান করে স্ক্রীন।


৩। এবং ডিসপ্লে রেজুলেশন হল ৭২০ x ১২৮০ পিক্সেল।


৪। ফোনটির অপারেটিং সিস্টেম এন্ড্রয়েড ৭.১.২।


৫। ফোনটিতে সংযুক্ত চিপসেট হল Qualcomm MSM8917 Snapdragon ৪২৫ (২৮ ন্যানো মিটার)


৬। এবং ফোনটিতে প্রসেসর পারফর্ম করে Quad-core ১.৪ GHz Cortex-A53।


৭। Adreno ব্র্যান্ডের অসাধারণ জিপিও আছে ফোনটিতে।


 ৫০০০ টাকার মধ্যে 4g মোবাইল বাংলাদেশ সম্বন্ধে আরো তথ্য জানতে পারেন।



Maximus P7 (৫০০০ টাকার মধ্যে  মোবাইল 4G )

মূল্যঃ ৪৯০০ টাকা।

        

রিলিজ তারিখঃ ২০১৯ 


অপারেটিং সিস্টেমঃ এন্ড্রয়েড ৮.১         


ডিসপ্লেঃ ৫.৪৫ ইঞ্চি, ৪৮০*৯৬০ পিক্সেলস        


ক্যামেরাঃ ৫ এমপি, ৭২০পি।    


র‍্যামঃ ১ জিবি Mediatek MT6739A


ব্যাটারিঃ ২৫০০ mAh Li-ion



Maximus P7 Plus ফোনটির বাংলাদেশ বাজার মূল্য ৪ হাজার ৯০০ টাকা। 


P7 Plus smartphone এর ডিসপ্লে সাইজ ৫.৪৫ ইঞ্চি।এবং এর ডিসপ্লের ৭৫ দশমিক ২ শতাংশ জায়গা জুড়ে আছে স্ক্রীন। 


ফোনটিতে আছে আইপিএস এলসিডি ক্যাপাসিটিভ টাচস্ক্রিন।


এর ডিসপ্লে রেজুলেশন ৪৮০ x ৯৬০। ফোনটিতে Quad-core ১.৩ GHz, MediaTek MT6739A প্রসেসর পারফর্ম করে। 


এটিতে আছে ১ জিবি র্যাম। এবং ৮ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ।


microSD সাপোর্টেড ফোনটিতে  ৬৪ জিবি পর্যন্ত এক্সটার্নাল স্টোরেজ বাড়ানো সম্ভব।


এক স্টাইলিশ স্মার্টফোনটির ব্যাকসাইড ক্যামেরা হচ্ছে ৫ মেগাপিক্সেলের।


ফ্রন্ট ক্যামেরা ৫ মেগাপিক্সেল। তো আমি যতগুলো ফোন রিভিউ করছি, এদের প্রায় প্রত্যেকটি রিয়েলমি সিটুএস এর কাছে ফুল ব্যাকডেটেড।


আর হ্যাঁ এই স্মার্টফোনট ২৫০০ ব্যাটারী দ্বারা পরিচালিত।



তো এই ছিল আমার দেখানো কতগুলো ফোন। যেগুলোর  প্রাইস 5000 টাকার মধ্যে ওঠানামা করে। পাচ হাজার থেকে কম না। আবার এর থেকে কখনো বেশিও না। যাদের বাজেট সর্বোচ্চ 5000, তাদের জন্য এই ফোনগুলো বেস্ট হবে। তো বর্তমান 2021 এ এসে আমি এই রিভিউটি করলাম।

কাজে যদি ভালো লাগে, তবে অবশ্যই কমেন্ট করবেন। 


পড়ুনঃ 

Naimul Islam

নাইমুল ইসলাম Expert Bangladesh এর Founder এবং Owner। সে অবসর সময়ে ব্লগিং ও লেখালেখি করতে ভালোবাসে। একইভাবে অনলাইনে নতুন কিছু শেখা তার প্রধান শখ।

Post a Comment

কমেন্ট করার মিনতি করছি। আমরা আপনার কমেন্টকে যথেস্ট মূল্য প্রদান করি। এটি আমাদের সার্ভিসের অংশ।

তবে কোনো ওয়েবসাইট লিংক প্রকাশ না করার অনুরোধ রইল।

Previous Post Next Post